Politics

[Politics][bleft]

West Bengal

[West Bengal][grids]

World

[World][bsummary]

National

[National][twocolumns]

৩০,০০০ ফুট উচ্চতা থেকে ইউরিন এবং মল উড়ে এসে বাড়িতে পড়ল




 বাড়িতে শান্তিপূর্ণভাবে বসে থাকা, ক্যাথ এবং রুথ মেইড হতবাক হয়ে গেলেন যখন ৩০,০০০ ফুট উচ্চতা থেকে ইউরিন এবং মল তাদের বাড়ির উপরে পড়েছিল৷ এই সমস্ত টুকরোগুলি একটি যাত্রীবাহী বিমান থেকে পড়েছিল যখন একজন যাত্রী বিমানের টয়লেট ফ্লাশ করেছিলেন৷


 

এক অবসরপ্রাপ্ত দম্পতি তাদের বাড়ির বাইরে থেকে আসা বিকট শব্দে হতবাক হয়ে যান।  বাইরে গিয়ে দেখলেন,দেখেন তার বাড়ির উপর এক বড়ো জমাট মূত্র ও মল এসে পড়েছে।  এবং এই টুকরোটি ৩০,০০০ ফুট উচ্চতা থেকে একটি বিমান থেকে পড়েছিল যখন তাতে ভ্রমণকারী একজন যাত্রী বিমানের টয়লেটটি ফ্লাশ করেছিলেন।  পতনের বিকট শব্দে ক্যাথ এবং রুথ দুজনেই ভয় পেয়ে যায়।


 রুথ, ৬৭, যিনি বাইরে একই ঘরে বসে ছিলেন, তিনি কোনও ধরণের আঘাত পাননি।  তিনি বলেন, “ওটা ভয়ানক শব্দ ছিল।  আমার মনে হলো কেউ আমার ঘরে ঢুকে পড়েছে।  ঈশ্বরকে ধন্যবাদ, এতে কেউ আহত হয়নি।  এই জিনিসটি কাউকে হত্যা করতে পারে।"


 


তার স্বামী ক্যাথ সকাল ৯টায় আওয়াজ শুনে বাড়ির বাইরে কোনো দুর্ঘটনা ঘটেছে ভেবে বাড়ি থেকে দৌড়ে বেরিয়ে যান।  বাড়ির বাইরের সড়কে ভাঙা ছাদের টাইলসের প্রায় তিন ফুট লম্বা ও দুই ফুট চওড়া একটি গর্ত দেখতে পান । পড়ে থাকা প্রতিটি টুকরোর ওজন ছিল প্রায় এক পাউন্ড এবং লম্বা ছিল ৭ ইঞ্চি।


 এই ঘটনার পর ইংল্যান্ডের মালশামের বাসিন্দারা বেশ নার্ভাস হয়ে পড়েন।  ভীত ক্যাথ পড়ে থাকা টুকরোগুলির মধ্যে একটি তুলে নিল কিন্তু হলুদ এবং বাদামী ডোরা দেখে অবিলম্বে তা ফেলে দিল।  পুরো বিষয়টি বোঝার পর, ক্যাথ সেগুলিকে ভালভাবে প্যাক করে ফ্রিজে রেখেছিল যাতে তাদের দ্বারা সৃষ্ট ক্ষতি পুষিয়ে নেওয়া যায়।


 তথ্য অনুসারে, প্রতি বছর প্রায় ২৫টি পুবাব্যাগ পড়া নিয়ে যুক্তরাজ্যের বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের কাছে রিপোর্ট করা হয়।

No comments: